13 তম জয়চন্ডী পাহাড় পর্যটন উৎসব আরম্ভ হবে আগামীকাল শুক্রবার 28 শে ডিসেম্বর থেকে। তাই জোর কদমে চলছে শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতি। হীরক রাজার দেশের জয়চন্ডী পাহাড় এর উৎসব এবার চলবে পাঁচ দিন। শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতি দেখতে বৃহস্পতিবার উৎসব প্রাঙ্গণে পৌঁছে যান রঘুনাথপুর মহকুমা শাসক ডাক্তার আকাঙ্ক্ষা ভাস্কার এসডিপিও সত্যব্রত চক্রবর্তী সহ মেলা কমিটির চেয়ারম্যান ভবেশ চট্টোপাধ্যায় ও সম্পাদক মৃত্যুঞ্জয় চৌধুরী। এদিন মেলা প্রাঙ্গণ ঘুরে দেখেন এস ডি ও আকাঙ্ক্ষা ভাস্কার সহ অন্যান্যরা এবং এই মেলাকে প্লাস্টিক মুক্ত রাখার অঙ্গীকার নিয়ে তিনি বিভিন্ন স্টলে গিয়ে প্লাস্টিক সামগ্রী বা থার্মোকলের ব্যবহার বন্ধ করতে অনুরোধ জানান। এদিন তিনি বলেন এই উৎসবে সবাই আনন্দ পাক এবং পরিবেশ দূষণ থেকে মুক্তি থাক এই উৎসব সেই কারণে প্লাস্টিক ও থার্মোকলের ব্যবহারের উপরে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে এর যদি কেউ লংঘন করে তার বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ গ্রহণ করবে প্রশাসন ও উৎসব কমিটি। উৎসব কমিটির চেয়ারম্যান ভবেশ চ্যাটার্জী ও সম্পাদক মৃত্যুঞ্জয় চৌধুরী জানান হীরক রাজার দেশের জয়চন্ডী পাহাড় এর এ বছর 13 তম বর্ষপূর্তি উপলক্ষে  মেলায় আগত দর্শকদের জন্য সবরকম ব্যবস্থা করেছে উৎসব কমিটি ।এবার মহিলাদের জন্য স্থায়ী শৌচালয় এর ব্যবস্থা থেকে নিরাপত্তার জন্য মেলা প্রাঙ্গণে লাগানো থাকছে সিসিটিভি ও ।এছাড়া এই মেলাকে দূষণমুক্ত রাখার জন্য প্লাস্টিক এবং থার্মোকল নিষিদ্ধ করা হয়েছে পাঁচ দিনের এই মেলায় স্থানীয় শিল্পীদের  সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের পাশাপাশি টলিউড এবং বলিউডের শিল্পীরাও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে করবেন।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

Blogger দ্বারা পরিচালিত.