পুরুলিয়া জেলা বিজেপির পক্ষ থেকে মঙ্গলবার বিকেলে রঘুনাথপুর শহরে গণতন্ত্র বাঁচাও মিছিল করা হয়। এই মিছিলে রাজ্য বিজেপির সম্পাদক সায়ন্তন বসু ,জেলা বিজেপির সভাপতি বিদ্যাসাগর চক্রবর্তী সহ অন্যান্য নেতা ও কর্মীরা পা মেলান। এদিন রঘুনাথপুর বাস স্ট্যান্ড থেকে আরম্ভ হয়ে মিছিল ব্লক কার্যালয় পর্যন্ত পৌঁছায়। এরপর সেখানে একটি সভা করে বিজেপি। এদিন সায়ন্তন বসু বলেন রাজ্যের পাশাপাশি রঘুনাথপুরে গণতন্ত্র ধ্বংস হয়েছে। এখানে পুলিশ ও সমাজবিরোধীদের সহযোগিতায় অগণতান্ত্রিকভাবে পঞ্চায়েত সমিতি গঠন করেছে তৃণমূল। তাই মানুষের অধিকার সুরক্ষিত রাখার জন্য আমরা এই গণতন্ত্র মিছিল করেছি। হাজার হাজার মানুষ এতে অংশগ্রহণ করেছেন।ভাঙচুর করা হয়েছে। তৃণমূল কংগ্রেস সক্রিয় সহযোগিতায় বান্দ কে আংশিক ভাবে সফল করার চেষ্টা করেছে কিন্তু জনগণ সিপিএম এবং তৃণমূলের যৌথ উদ্যোগের এই চেষ্টাকে ব্যর্থ করেছে। এদিন তিনি আরো বলেন আর কিছু দিনের মধ্যেই বিজেপির এই রাজ্যে ক্ষমতায় আসবেন। তাই আমি আমাদের কর্মীদের বলব তৃণমূলের গুন্ডা দের লিস্ট তৈরী করে রাখুন নির্বাচনের আগে তারা হয় জেলে থাকবে না হলে রঘুনাথপুর ছেড়ে পালিয়ে যাবে। কেননা এবার নির্বাচন করাবে কেন্দ্রীয় বাহিনী। রাজ্যের পুলিশ শুধু আমাদের নেতাদের গরুর পাহারা দেবেন। লাল ডায়েরি তে নাম লেখা হয়ে গেছে ভোটের আগে লাইন শুরু হয়ে যাবে যাদের ভুবনেশ্বর পাঠাতে পারবো না তাদের বিভিন্ন জায়গায় ট্রানস্ফার করে দেয়া হবে। দিনে কোচবিহার ও রাত্রে কাঁথি পাঠিয়ে দেয়া হবে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

Blogger দ্বারা পরিচালিত.